25 Sep 2017 - 12:14:28 pm

পশ্চিমবঙ্গের শিক্ষা ও চাকরীর বেহাল দশা

Published on বুধবার, জুলাই ১৯, ২০১৭ at ১০:৪৭ অপরাহ্ণ
Print Friendly, PDF & Email

শুভ্রজীৎ বিশ্বাস, মেখলিগঞ্জ (কোচবিহার) প্রতিনিধি: কোচবিহার জেলার মেখলিগঞ্জে সিভিক পুলিশ বা সিভিক ভলেন্টিয়ার নিয়োগ এর আবেদন প্রক্রিয়ার প্রথম দিনেই রণক্ষেত্র মেখলিগঞ্জ থানা চত্ত্বর ৷ আজ সকাল থেকেই মেখলিগঞ্জ মহকুমার বিভিন্ন প্রান্ত থেকে বেকার যুবক-যুবতীরা ভীড় জমায় পশ্চিমবঙ্গের শিক্ষা ও চাকরীর বেহাল দশামেখলিগঞ্জ থানায়৷ বেলা গড়ানোর সাথে সাথে বাড়তে থাকে আবেদনকারীর সংখ্যা৷ রাজ্যের শাসকদল তৃণমূল কংগ্রেসের ছাত্র সংগঠন তৃণমূল ছাত্র পরিষদের তরফে ছাত্র নেতা সুমন মন্ডল অভিযোগ আনেন যে মেখলিগঞ্জ থানার পুলিশ আবেদনকারী যুবক-যুবতীদের ওপর লাঠি চালায়৷

এই ঘটনার তীব্র নিন্দা করে তিনি বলেন এই ঘটনা মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জীর রাজ্যে মেনে নেওয়া হবে না৷ অপর দিকে আর এক ছাত্র সংগঠন ভারতীয় ছাত্র ফেডারেশন (এস.এফ.আই) এর জোন সম্পাদক আতাবুল ইসলাম বলেন, যে রাজ্যের প্রাক্তন শিক্ষামন্ত্রী কে স্কুল সার্ভিস কমিশনের (এস.এস.সি) পরীক্ষা নিয়ে প্রশ্ন করলে বলেন যে এস.এস.সি কি দূর্গা পূজা যে প্রতি বছর হবে ? সেই রাজ্য চাকরির পরিস্থিতি যে কি ভয়াবহ তা নিয়ে সন্দেহ নেই এবং তারই প্রমাণ মাত্র কিছু পদের জন্যে অসংখ্য বেকার যুবক-যুবতীর আবেদন৷ তিনি আরও জানান যে চাকরির এই ভয়াবহ পরিস্থিতি তে আজ যখন মেখলিগঞ্জের বেকার যুবক-যুবতীরা আবেদনপত্র সংগ্রহের জন্য মেখলিগঞ্জ থানায় আসে তখন পুলিশ তাদের ওপর লাঠি চালায়৷ মেখলিগঞ্জ এস.এফ.আই ( ভারতের ছাত্র ফেডারেশন) জোন কমিটি এই ঘটনার তীব্র নিন্দা করে এই ঘটনাকে ধিক্কার জানায়৷ মেখলিগঞ্জ থানার ও.সি কে এই ব্যাপারে প্রশ্ন করা হলে তিনি জানান, লাঠি চালানোর অভিযোগ সম্পূর্ণ ভিত্তিহীন৷ পুলিশ আবেদনকারীদের ওপর লাঠি চালায়নি৷ আজ সন্ধ্যা ৬ টা পর্যন্ত ২৫১০ জন কে আবেদনের ফর্ম দেয় মেখলিগঞ্জ থানা৷

উল্লেখ্য যে সারা রাজ্য ব্যাপী পশ্চিমবঙ্গ সিভিক পুলিশ বা সিভিক ভলেন্টিয়ার নেওয়ার বিজ্ঞপ্তি দিয়েছে পশ্চিমবঙ্গ রাজ্য সরকার ৷

Print Friendly, PDF & Email