মান্দায় গৃহবধূর রহস্যজনক মৃত্যু॥আত্মহত্যা নাকি হত্যা
২৯ এপ্রি '১৮
0 Shares

মান্দায় গৃহবধূর রহস্যজনক মৃত্যু॥আত্মহত্যা নাকি হত্যা

এম এম হারুন আল রশীদ হীরা, মান্দা (নওগাঁ) প্রতিনিধিঃ নওগাঁর মান্দায় স্বামী ও শ্বাশুড়ির সাথে অভিমান করে গলায় ফাঁস দিয়ে সুলতানা বেগম (৩৮) নামে এক গৃহবধূর রহস্যজনক মৃত্যু হয়েছে। এটি হত্যা নাকি নিছক আত্মহত্যা তা নিয়ে প্রশ্ন দেখা দিয়েছে। ঘটনাটি ঘটেছে মান্দা উপজেলার পরানপুর ইউনিয়নের হলুদঘর সোনারপাড়া গ্রামে। সুলতানা উক্ত গ্রামের আবুল হোসেনের স্ত্রী। গতকাল শুক্রবার দুপুরে শয়নঘরের তীরের সাথে রশি দিয়ে ফাঁস দেওয়া ঝুলন্ত লাশ দেখতে পেয়ে চিৎকার চেঁচামেচি করতে থাকে প্রতিবেশিরা। এতে এলাকার লোকজন লাশটি দেখতে ঐখানে প্রচন্ড ভীড় জমায়। খবর পেয়ে পুলিশ সেখান থেকে লাশ উদ্ধার করে।মান্দায় গৃহবধূর রহস্যজনক মৃত্যু॥আত্মহত্যা নাকি হত্যা
থানার উপপরিদর্শক আবদুল মালেক জানান, সুলতানার স্বামী আবুল হোসেন ফরিদপুর জেলায় শ্রমিক হিসেবে কাজে যায়। সেখান থেকে মজুরির সব টাকা স্ত্রীকে না দিয়ে তার মায়ের কাছে পাঠায়। এ নিয়ে স্বামীর সাথে মুঠোফোনে বাক-বিতন্ডা ও ঝগড়া হয়। এক পর্যায়ে গতকাল শুক্রবার পারিবারিক কলহে শ্বাশুড়ির সাথে অভিমান করে সুলতানা শয়নঘরের তীরের সাথে রশি দিয়ে গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করতে পারেন বলে তার ধারণা। খবর পেয়ে বেলা সাড়ে ৫টার দিকে তিনিসহ সঙ্গীয় পুলিশ সদস্য নিয়ে লাশ উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসেন।
ঘটনার পর থেকে ঐ পরিবার ঘটনাটি ধামা চাপা দেয়ার অপচেষ্ঠা করছেন বলে অভিযোগ রয়েছে। তবে ঐ পরিবারের লোকজন এ সময় নিরব না থাকায় এটি নিছক আত্মহত্যা নাকি হত্যা সে রহস্য উন্মোচিত করা সম্ভব হয়নি এবং তাদের মন্তব্য নেয়াও সম্ভব হয়নি।
মান্দা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আনিছুর রহমান জানান, সুলতানা বেগম আত্মহত্যা করেছে বলে তিনি জেনেছেন। এ ঘটনায় একটি অপমৃত্যুর মামলা দায়ের করার প্রস্তুতি চলছে। ময়না তদন্তের জন্য লাশটি নওগাঁ সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হবে।

 

Print Friendly, PDF & Email

About dimlanews

Related Posts

Leave a Reply

*

সম্পাদকের বক্তব্যঃ

তিস্তা নিউজ ২৪ ডটকম ভিজিট করুন এবং বিজ্ঞাপন দিন।